সুদানের প্রধানমন্ত্রী গৃহবন্দি, সামরিক অভ্যুত্থানের আশঙ্কা

বিশ্ব শিরোনাম

সুদানের প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদককে গৃহবন্দি করা হয়েছে। সোমবার (২৫ অক্টোবর) ভোরে দেশটির সামরিক বাহিনীর অজ্ঞাত সদস্যরা হামদকের বাড়ির সামনে অবস্থান নিয়ে তাকে গৃহবন্দি করে। সোমবার এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা।

অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দিয়ে সুদানের আল হাদাছ টিভি এই তথ্য নিশ্চিত করেছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে এখনও বিষয়টি নিশ্চিত করা সম্ভব হয়নি।

এদিকে বার্তাসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদককে গৃহবন্দি করার পাশাপাশি সামরিক বাহিনীর অজ্ঞাত সদস্যরা দেশটির চারজন মন্ত্রী এবং একজন বেসামরিক কর্মকর্তাকে আটক করে। হামদককে গৃহবন্দি করার আগেই তাদেরকে আটক করা হয়।

আলজাজিরা জানিয়েছে, সুদানের মন্ত্রিসভার চারজন সদস্যকে আটকের পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী আবদাল্লাহ হামদকের মিডিয়া অ্যাডভাইজারকেও আটক করা হয়েছে। তিনি দেশটির ক্ষমতাসীন সার্বভৌম কাউন্সিলের সদস্য।

এর আগে উত্তর আফ্রিকার দেশ সুদানে অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের বিরোধীরা সামরিক বাহিনীকে অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতা দখলে নেওয়ার আহ্বান জানায়। গত সপ্তাহের শনিবার দেশটির রাজধানী খার্তুমে অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের বিরোধিতায় বিক্ষোভ থেকে সেনাবাহিনীর প্রতি ওই আহ্বান জানানো হয়।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি সেসময় জানায়, দেশটিতে রাজনৈতিক সংকট আরও ঘনীভূত হওয়ায় কয়েক হাজার বিক্ষোভকারী প্রেসিডেন্ট প্রাসাদের বাইরে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করেন। ২০১৯ সালে দেশটির প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বশিরকে ক্ষমতা থেকে বিতাড়িত করার পর সামরিক বাহিনী এবং বেসামরিক গোষ্ঠীগুলো ক্ষমতার ভাগাভাগির মাধ্যমে সুদান শাসন করে আসছে।

কিন্তু গত সেপ্টেম্বরে বশিরের অনুসারী সামরিক কর্মকর্তাদের অভ্যুত্থানের চেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার পর থেকে দেশটিতে আবারও উত্তেজনা বৃদ্ধি পায়। তখন থেকে সামরিক নেতারা বশিরবিরোধী বিক্ষোভের নেতৃত্বদানকারী বেসামরিক জোট ফোর্সেস অব ফ্রিডম অ্যান্ড চেঞ্জের (এফএফসি) সংস্কারের দাবি জানিয়ে আসছিলেন। একইসঙ্গে তারা অন্তর্বর্তী সরকারের গুরুত্বপূর্ণ অংশ গঠন করেন।

শেয়ার করলে অনুপ্রাণিত হবো...।

Comments

comments